আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ঘানার ব্রোং-আহাফো অঞ্চলের জনপ্রিয় পর্যটন স্পট কিনট্যাম্পো জলপ্রপাতে বিশাল একটি গাছ উপড়ে পড়ে ২০ জন নিহত ও বহু আহত হয়েছেন। এতে ঘটনাস্থলেই ১৮ জন নিহত এবং হাসপাতালে নেওয়ার পর আরো দুইজন মারা যান বলে জানিয়েছেন ঘানার দমকল বিভাগের মুখপাত্র প্রিন্স বিলি অ্যাঙ্গলাতি।
ঘানার গণমাধ্যম ও বিবিসির প্রতিবেদন সূত্রে জানা গেছে, গত রোববার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে ঝড়ো বাতাসে জলপ্রপাতের ওপরের দিক থেকে একটি গাছ নিচে জলপ্রপাতটির পানিতে সাঁতাররত লোকজনের ওপরে গিয়ে পড়ে।
নিহতদের অধিকাংশ ওয়েঞ্চি মেথডিস্ট সিনিয়র হাইস্কুলের ভূগোলের ছাত্র। শিক্ষাসফরে সেখানে গিয়েছিল তারা। নিহত অন্যান্যের মধ্যে দেশটির এনার্জি এ- ন্যাচারাল রিসোর্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রও রয়েছে। আহতদের মধ্যে ওয়েঞ্চি হাইস্কুলের এক শিক্ষকও রয়েছেন। উপড়ে পড়া গাছটির ডালপালার মধ্যে আটকে পড়া লোকজনকে উদ্ধারে ঘটনাস্থলে পুলিশ ও দমকল কর্মীদের একটি যৌথ দল উপস্থিত হয়ে উদ্ধারকাজ শুরু করে।
এক প্রত্যক্ষদর্শী ঘানার স্টার নিউজকে বলেছেন, “বৃষ্টি শুরু হওয়ার পরপরই উপর থেকে একটি বিশাল গাছ উপড়ে পড়ে নিচে হুল্লোররত ছাত্রদের পিষে দেয়।” চেইন-স দিয়ে ডাল কেটে আটকে পড়াদের উদ্ধারের চেষ্টা করা হচ্ছিল বলে জানা গেছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে